জরুরি নোটিশ:
যুগযুগান্তর পত্রিকার জন্য সারাদেশে জেলা ও উপজেলায় সংবাদ দাতা আবশ্যক।  মোবা: 01842268378 ইমেইল: nskibria2012@gmail.com
সায়েদাবাদে ঘরে ফেরা মানুষের ঢল

সায়েদাবাদে ঘরে ফেরা মানুষের ঢল

নিজস্ব প্রতিবেদক : আগামী সোমবার কোরবানির ঈদ। প্রিয়জনের সঙ্গে ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করতে ঘরমুখী মানুষের ঢল নেমেছে সায়েদাবাদ বাস টার্মিনালে।

শুক্রবার সায়েদাবাদ টার্মিনালে গিয়ে দেখা গেছে, কাঁধে ব্যাগ বা হাতে লাগেজ নিয়ে লোকজন বসে বা দাঁড়িয়ে আছেন। তারা রাজধানীর বিভিন্ন এলাকা থেকে টার্মিনালে এসেছেন। দেখা গেছে, হানিফ, সাকুরা, হিমাচাল, এস আলম, শ্যামলী, গোল্ডেন লাইন, রয়েল, সেন্টমার্টিনসহ বিভিন্ন পরিবহনের বাসের টিকিট যারা আগেই কেটে রেখেছেন তারা কাউন্টারে বাসের জন্য অপেক্ষা করছেন। কিন্তু গাড়ি নির্ধারিত সময়ে ছাড়ছেনা। রাজধানীর সেগুনবাগিচা থেকে বাস টার্মিনালে এসেছেন চট্টগ্রামের যাত্রী আবির হোসেন। তিনি বলেন, ‘সকাল ৯টায় টার্মিনালে এসেছি। হানিফ পরিবহনের অগ্রিম টিকেট সংগ্রহ করেছি। সাড়ে ৯ টার বাস এসেছে ১১ টায়। এখান থেকে বাস ছাড়তে দেরি করছে।‘

হানিফ বাসের কন্ডাক্টর রবিউল জানান, ‘চট্টগ্রাম যাব। পথে যানজট। যাত্রী উঠলেই বাস ছেড়ে দেব।’

অন্যদিকে, হিমাচল পরিবহনের যাত্রী রাজিব বলেন, ‘সকাল ১০টায় বাস ছাড়ার কথা, কিন্তু গাড়ি এসেছে ১১টায়। কুমিল্লা যাব। রাস্তায় যানজট হলে আরো কষ্ট হবে।‘

হিমাচল পরিবহনের কাউন্টার মাস্টার আজাদ হোসেন জানান, ‘রাস্তায় যানজট। গাড়ি আসতে দেরি হয়েছে। আগে থেকে যেসব যাত্রী টিকিট বুকিং দিয়েছেন তারাই শুধু যাচ্ছেন।‘ অন্যদিকে,যারা আগে টিকিট বুকিং করেননি তারা এ টার্মিনালে কাঙ্ক্ষিত বাস খুঁজছেন। খুলনার পর্যটন পরিবহন, ঢাকা থেকে চট্টগ্রামগামী ইডিএম পরিবহন, মনোহরদী পরিবহন, কুমিল্লা রুটের মায়ের দোয়া (ঢাকা-হোমনা), মা-বাবার দোয়া, ফাহিম এন্টারপ্রাইজ, দেশ ট্রান্সপোর্ট, তিশা প্লাসসহ বেশকিছু পরিবহনের যাত্রীদের আকৃষ্ট করতে বাস চালকের সহযোগী ‘সিট খালি’, ‘ভাড়া কম’ বলে চিৎকার করছেন ।

তবে, সায়েদাবাদ বাস টার্মিনালে সৌদিয়া, সাকুরা, রয়েল, তিশা, দোয়েল, ঈগল, হানিফ, সোহাগ, শ্যামলী, একে ট্রাভেলস, স্টার লাইন, এস আলম, গোল্ডেন লাইন, সার্বিকসহ বিভিন্ন পরিবহনের কাউন্টারের সামনে মানুষের ভিড় দেখা গেছে।

স্টার লাইন পরিবহনের কাউন্টার মাস্টার সুজন
জানান, ‘গাড়ি স্বাভাবিকভাবেই চলছে। আগে থেকে যেসব যাত্রী টিকিট বুকিং দিয়েছেন তারাই শুধু যাচ্ছেন।‘ অতিরিক্ত ভাড়া আদায় হচ্ছে কিনা এমন প্রসঙ্গে সাব্বির নামের একজন যাত্রী জানান, ‘ফরিদপুরের যাওয়ার জন্য সার্বিক পরিবহনের ৯ আগস্টের টিকিট অতিরিক্ত টাকা দিয়ে সংগ্রহ করেছেন তিনি।‘ তবে সার্বিক পরিবহনের কাউন্টার মাস্টার আব্দুল্লাহ অতিরিক্ত ভাড়া আদায়ের বিষয়টি অস্বীকার করেন।

তিনি বলেন, ‘অতিরিক্ত ভাড়া আদায় হচ্ছে না। ফেরি পারাপারে দেরি হওয়ায় শিডিউল অনুযায়ী ৩০-৪০ মিনিট দেরি হচ্ছে। তবে,নির্দিষ্ট সময়ে গাড়ি পৌঁছে যাবে।‘

যুগযুগান্তর পত্রিকা. নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2018 Jugjugantor24.com  
Design & Developed BY ThemesBazar.Com