জরুরি নোটিশ:
যুগযুগান্তর পত্রিকার জন্য সারাদেশে জেলা ও উপজেলায় সংবাদ দাতা আবশ্যক।  মোবা: 01842268378 ইমেইল: nskibria2012@gmail.com
জামায়াতের রাজনীতি নিষিদ্ধের দাবি

জামায়াতের রাজনীতি নিষিদ্ধের দাবি

নিজস্ব প্রতিবেদক,
একাত্তরে মুক্তিযুদ্ধবিরোধী দল হিসেবে চিহ্নিত জামায়াতে ইসলামীর শুধু নিবন্ধনই বাতিল নয়, আইন করে দলটির রাজনীতি বাতিলের দাবি করেছেন বিশিষ্টজনেরা।

শুক্রবার বিকালে শাহবাগে জাতীয় জাদুঘরের সামনে আয়োজিত সমাবেশ থেকে এই দাবি জানান বক্তারা। মুক্তিযুদ্ধের সপক্ষের সংগঠন ‘গৌরব ৭১’ এই সমাবেশের আয়োজন করে।

স্বাধীনতাবিরোধী সংগঠন জামায়াতে ইসলামীর নিবন্ধন বাতিলে আনন্দ মিছিল এবং রাজাকারের পূর্ণাঙ্গ তালিকা প্রণয়ন ও নাগরিক অধিকার সংকোচনের দাবিতে এই সমাবেশের আয়োজন করা হয়।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, ১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধের সময় যারা এদেশের বিরোধিতা করেছে, সেই রাজাকারদের পূর্ণাঙ্গ তালিকা প্রকাশ ও তাদের নাগরিক অধিকার সংকোচনসহ এদেশে তাদের রাজনীতি নিষিদ্ধের দাবি জানাই।

সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি গোলাম কুদ্দুস। বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন গণজাগরণ মঞ্চের অন্যতম সংগঠক বাপ্পাদিত্য বসু, আওয়ামী যুব মহিলা লীগের সহসভাপতি কুহেলী কুদ্দুস মুক্তি, স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের অন্যতম শিল্পী মনরঞ্জন ঘোষাল, বাংলাদেশ আবৃত্তি সমন্বয় পরিষদের সাধারণ সম্পাদক আহকাম উল্যাহ, গৌরব ৭১ এর উপদেষ্টা সানজিদা খানম এমপি, জাতীয় শ্রমিক জোটের সভাপতি সাইফুজ্জামান বাদশা, মুক্তিযোদ্ধা রুহুল আমিন মজুমদার, গৌরব ৭১ এর সাধারণ সম্পাদক এফ এম শাহীন প্রমুখ।

সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন গৌরব ৭১ এর সভাপতি এস এম মনিরুল ইসলাম মনি এবং সঞ্চালনা করেন সাংস্কৃতিক জোটের সদস্য হানিফ খান।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে গোলাম কুদ্দুস বলেন, ‘১৯৪৭ সাল থেকে প্রতিটি আন্দোলনে জামায়াত এদেশের বিরোধিতা করেছে। আজ পর্যন্ত তাদের সেই দেশবিরোধী ষড়যন্ত্র থেমে নেই। তাই জামায়াত-শিবিরের রাজনীতি নিষিদ্ধ করতে হবে।’

গোলাম কুদ্দুস বলেন, ‘ব্যক্তিকে তার অপরাধের জন্য দণ্ড দিয়ে সাজা দেওয়া যায়, কিন্তু সংগঠনকে দণ্ড দেওয়া যায় না। সংগঠনকে দণ্ড দিতে হলে অবশ্যই সেই সংগঠনের রাজনীতি নিষিদ্ধ করতে হবে।’

সম্প্রতি গঠিত জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট সম্পর্কে তিনি বলেন, ‘রাজনৈতিক ঐক্য হয় আদর্শের দ্বারা। কিন্তু যে ঐক্যফ্রন্ট গঠিত হলো তাতে কোনো আদর্শ আছে বলে মনে হয় না। এই ঐক্য হলো ক্ষমতায় যাওয়ার ঐক্য।’

ড. কামালের উদ্দেশে গোলাম কুদ্দুস বলেন, ‘আপনি বাহাত্তরের সংবিধানের অন্যতম প্রণেতা। আর সেই সংবিধানে লেখা আছে বাঙালি জাতীয়তাবাদের কথা। তাহলে আপনি এখন কেন বাংলাদেশি জাতীয়তাবাদীদের সাথে ঐক্য করলেন?’

গণজাগরণ মঞ্চের অন্যতম সংগঠক বাপ্পাদিত্য বসু বলেন, ‘যারা বাংলাদেশ চায়নি, তাদেরকে নিষিদ্ধ করতে হবে। তাদের পরিবারের ভোটাধিকারও নিষিদ্ধ করতে হবে।’

সমাবেশ শেষে জামায়াতে ইসলামীর নিবন্ধন বাতিলে আনন্দ মিছিল বের করেন মুক্তিযুদ্ধের সপক্ষের নেতাকর্মীরা।

যুগযুগান্তর পত্রিকা. নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2018 Jugjugantor24.com  
Design & Developed BY ThemesBazar.Com